জিহাদে না যেয়ে মরণকে ফাকি দিতে পারবেননা!!

techniques_of_silent_killing_bn.  security Courseআল্লাহ প্রত্যেক মানুষকে নির্ধিষ্ট রিজিক এবং হায়াত দিয়ে তৈরী করেছেন ৷ অবাক লাগে যখন একজন মুসলিম চিন্তা করে সে জিহাদের ময়দানে জিহাদ করতে গেলে সে মারা যাবে এবং ময়দানে না গেলে সে মওতকে ফাকি দিয়ে দিবে ৷ এইটা ভুল বিশাস, একজন বেক্তি হতে পারে তার সমস্থ জীবন জিহাদের ময়দানে কাটাবে তার পরেও তার কিছু হয়না, এইটার বেস্ট উদাহরণ হচ্ছেন খালেদ বিন ওয়ালিদ (রা) উনি উনার জীবনের বেশি অংশই শাহাদার খুঁজে জিহাদ করেছেন কিন্তু তার পরেও নিজের বিছানায় ইন্তেকাল করেছেন ৷

জিহাদে গেলে আপনি আপনার হায়াত কমাতেও পারবেন না আর নাগিয়ে বাড়াতেও পারবেননা কারণ আল্লাহ বলেছেন:

‘যদি আল্লাহ লোকদেরকে তাদের অন্যায় কাজের কারণে পাকড়াও করতেন, তবে ভুপৃষ্ঠে চলমান কোন কিছুকেই ছাড়তেন না। কিন্তু তিনি প্রতিশ্রুতি সময় পর্যন্ত তাদেরকে অবকাশ দেন। অতঃপর নির্ধারিত সময়ে যখন তাদের মৃত্যু এসে যাবে, “তখন এক মুহুর্তও বিলম্বিত কিংবা তরাম্বিত করতে পারবে না।”‘{১৬:৬১}

“হে ঈমাণদারগণ! তোমরা তাদের মত হয়ো না, যারা কাফের হয়েছে এবং নিজেদের ভাই বন্ধুরা যখন কোন অভিযানে বের হয় কিংবা জিহাদে যায়, তখন তাদের সম্পর্কে বলে, তারা যদি আমাদের সাথে থাকতো, তাহলে মরতোও না আহতও হতো না। যাতে তারা এ ধারণা সৃষ্টির মাধ্যমে সংশ্লিষ্টদের মনে অনুতাপ সৃষ্টি করতে পারে। অথচ আল্লাহই জীবন দান করেন এবং মৃত্যু দেন। তোমাদের সমস্ত কাজই, তোমরা যা কিছুই কর না কেন, আল্লাহ সবকিছুৃই দেখেন।{৩:১৫৬}

ইবন কাসির এই আয়াতের তাফসীরে বলেন:
আল্লাহ এই আয়াতে মুসলিমদের কাফিরদের (মুনাফিকীনদের) বিশ্বাস নকল না করার জন্য সাবধান করেছেন এই কথার দিকে ইঙ্গিত করে ‘”তারা যদি আমাদের সাথে থাকতো, তাহলে মরতোও না আহতও হতো না”‘ কারণ এইটা কাফিরদের বিশ্বাস ৷ 
এবং আল্লাহ এইটা নিশ্চিত করেছেন যে মরণ এবং জীবন শধু আল্লাহর থেকেই আসে এবং কারো হায়াত বাড়তে বা কমতে পারবেনা আল্লাহর অনুমতি ছাড়া,আয়াতের এই কথার দিকে ইঙ্গিত করে “”অথচ আল্লাহই জীবন দান করেন এবং মৃত্যু দেন। তোমাদের সমস্ত কাজই, তোমরা যা কিছুই কর না কেন, আল্লাহ সবকিছুৃই দেখেন””..(তাফসির ইবন কাসীর ১ /৪২০)

তাই মৃত্যুকে কে ভয় পেয়ে আল্লাহর দ্বীনের প্রতি, ইসলামের প্রতি, মুসলিমদের প্রতি কর্তব্যের অবহেলা করা ঠিক হবে না, জিহাদে যোগ দেওয়ার সুযুগ পেয়েও সুযুগ হাত ছাড়া করা যাবে না কারণ 
নবী (সা) বলছেন জিহাদ ছেড়ে দিলে আল্লাহ মুসলিমদের অপমানিত এবং লাঞ্চিত করে ফেলবেন এবং বিরাট দুর্ভাগে ফেলবেন.
(আহমেদ/তাবরানী এবং আলবানী সহিহ আল জমি ৬৭৫)

আব্দুল্লাহ আজাম (রাহ) বলেছিলেন মরনতো একবারই তাহলে আল্লাহর দ্বীনের জন্যই মরি !!

আল্লাহ যেন আমাদের হিফাজত করেন এবং আমাদের বুঝার এবং আমল করার তাওফীক দান করেন..আমীন!!security Course

Advertisements